বিষয় :

অনলাইনে চট্টগ্রামের ১০ সরকারি বিদ্যালয়ে ভর্তি শুরু


সকালের সময় : ২৫ নভেম্বর, ২০২১ ১১:৪৬ : পূর্বাহ্ণ

শিক্ষা ডেস্ক : সারাদেশে আজ বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) থেকে শুরু হয়েছে সরকারি-বেসরকারি স্কুলগুলোতে প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত শিক্ষার্থী ভর্তির আবেদন। এ প্রক্রিয়া চলবে আগামী ৮ ডিসেম্বর বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

সারাদেশের ন্যায় চট্টগ্রামের ১০টি সরকারি বিদ্যালয়েও ভর্তির আবেদন শুরু হয়েছে অনলাইনে। এবার ভর্তি আবেদন ফি ধরা হয়েছে ১১০ টাকা।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি) জানিয়েছে, এবার প্রথম সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পাশাপাশি বেসরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়গুলোতেও অনলাইনে আবেদন এবং কেন্দ্রীয় লটারি অনুষ্ঠিত হবে। সরকারি মাধ্যমিকে আগামী ১৫ ডিসেম্বর এবং বেসরকারিতে ১৯ ডিসেম্বর লটারি অনুষ্ঠিত হবে।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) সকাল ১১টা থেকে বিদ্যালয়ে ভর্তি সংক্রান্ত ওয়েবসাইট (http://www.gsa.teletalk.com.bd) থেকে আবেদন ফরম পূরণ করছেন ভর্তিচ্ছুরা।

চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মু. মাহমুদ উল্লাহ মারুফ জানিয়েছেন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন সরকারি বিদ্যালয়গুলোর শ্রেণিভিত্তিক শূন্য আসনের তালিকা চূড়ান্ত করেছে।

তালিকা অনুযায়ী, ৫ম থেকে ৯ম শ্রেণিতে মোট ৩ হাজার ৮৬০টি আসন রয়েছে। এর মধ্যে ৫ম শ্রেণিতে ১ হাজার ৯১০ জন, ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ৭৩০ জন, ৭ম শ্রেণিতে ১০ জন, অষ্টম শ্রেণিতে ২৪৮ জন এবং নবম শ্রেণিতে ৯৬২ জন শিক্ষার্থী ভর্তির সুযোগ পাবেন।

চট্টগ্রামের সরকারি বিদ্যালয়গুলো হলো- চট্টগ্রাম কলেজিয়েট স্কুল, ডা. খাস্তগীর সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়, গভর্নমেন্ট মুসলিম হাইস্কুল, চট্টগ্রাম সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, নাছিরাবাদ সরকারি উচ্চবিদ্যালয়, চট্টগ্রাম সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, সিটি সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়, হাজী মুহাম্মদ মহসিন সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, বাকলিয়া সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় এবং চট্টগ্রাম সরকারি মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজ।

সারা দেশে আবেদনকারীরা আবেদনের সময় প্রতিষ্ঠান নির্বাচনকালে থানাভিত্তিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের তালিকা পাবে। এক্ষেত্রে প্রার্থীরা প্রাপ্যতার ভিত্তিতে প্রতিটি আবেদনে সর্বোচ্চ পাঁচটি বিদ্যালয় পছন্দের ক্রমানুসারে নির্বাচন করতে পারবে।

তবে কোনও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের একটি শ্রেণির দুই শিফটে আবেদন করলে সেক্ষেত্রে দুইটি স্কুল পছন্দ করা হয়েছে বলে বিবেচনা করা হবে। আবেদন ফি ১১০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। মোবাইল ব্যাংকিং এর মাধ্যমে অনলাইনে এই ফি দেওয়া যাবে।

আবেদন গ্রহণ শেষে ভর্তির লটারি ১৫ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। অনলাইনে লটারির মাধ্যমেই ভর্তির জন্য শিক্ষার্থী নির্বাচন করা হবে। টেলিটকের মাধ্যমে ফল প্রকাশ করবে মাউশি।

এদিকে মাউশির অধীনে বেসরকারি বিদ্যালয়েও ভর্তির আবেদন অনলাইনে গ্রহণ করা হবে। লটারি অনুষ্ঠিত হবে ১৯ ডিসেম্বর। ভর্তির জন্য অনলাইন আবেদনে ৫টি বিদ্যালয় পছন্দক্রম দিয়ে আবেদন করার সুযোগ পাবেন শিক্ষার্থীরা।

তবে কোনও বিদ্যালয়ের একটি শ্রেণির দুই শিফটে (মর্নিং ও ডে শিফট) আবেদন করলে তা দুটি বিদ্যালয় হিসেবে গণ্য করা হবে। এবার অনলাইন আবেদন ফি নির্ধারণ করা হয়েছে ১১০ টাকা।

এক আবেদনেই ৫টি বিদ্যালয় পছন্দক্রম দিয়ে আবেদন করতে পারবেন ভর্তিচ্ছুরা। কোনও বেসরকারি বিদ্যালয় আলাদা করে ভর্তি ফরম বিক্রি করতে পারবে না বলে জানিয়েছেন মাউশির উপ-পরিচালক মো. আজিজ উদ্দিন।

শিক্ষার্থী ভর্তির ক্ষেত্রে স্ব স্ব ভর্তি কমিটির উপস্থিতিতে লটারির মাধ্যমে শিক্ষার্থী নির্বাচন প্রক্রিয়া নিষ্পন্ন করা ছাড়া অন্য কোনো উপায়ে, যেমন পরীক্ষা নিয়ে, শিক্ষার্থী ভর্তি করা যাবে না।

এছাড়া, সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে কর্মরত শিক্ষক/শিক্ষিকা/কর্মচারীদের ভর্তির উপযুক্ত সন্তান সংখ্যার সমসংখ্যক আসন ওই প্রতিষ্ঠানে সংরক্ষিত থাকবে। এক্ষেত্রে তাদের অনলাইনে আবেদনের প্রয়োজন নেই।

এস এস/

Print Friendly, PDF & Email

আরো সংবাদ